Ads1

এক নজরে মৌলভীবাজার পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট

 

এক নজরে মৌলভীবাজার পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট

শুভ গোয়ালা:: মৌলভীবাজার পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট বাংলাদেশের একটি আধুনিক মানগত প্রতিষ্ঠান। এটি দেশের ৪৯ তম পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট হিসাবে শিক্ষা-কার্যক্রম শুরু হয়।

ইতিহাসঃ
হযরত শাহ মোস্তফা সহ অগণিত আউলিয়াদের পুণ্যভূমি মৌলভীবাজার জেলার মাতারকাপন – এ চার একর জমির ওপর মৌলভীবাজার পলিটেকনিক ইন্সটিটিউট অবস্থিত। চারদিকে সবুজ প্রাকৃতিক পরিবেশের মাঝে প্রতিষ্ঠানটি মাথা উঁচু করে তার অবস্থান জানান দিচ্ছে । কারিগরি শিক্ষায় পিছিয়ে পরা জনপদ হিসেবে এ শিক্ষা প্রসারের লক্ষে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সাবেক অর্থ ও পরিকল্পনা মন্ত্রনালয়ের মাননীয় মন্ত্রী মরহুম জনাব এম. সাইফুর রহমান, এম.পি, ৬ ফাল্গুন ১৪১২, মোতাবেক ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০০৬ সালে মৌলভীবাজার পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন।

১৩ অক্টোবর ২০১০ সালে কর্মস্থল পরিবর্তনে ১ জন শিক্ষককে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের দায়িত্ব প্রদানের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানটির আনুষ্ঠানিক প্রশাসনিক কার্যক্রম আরম্ভ হয় এবং পরবর্তীতে কম্পিউটার এবং ইলেকট্রনিক্স টেকনোলজিতে ১ জন করে শিক্ষককে একই প্রক্রিয়ায় পদায়ন করা হয়। বর্তমানে প্রকৌঃ মো মিজানুর রহমান অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত)  হিসাবে আছেন। 

শিক্ষাকার্যক্রম ও শিক্ষার্থী পরিসংখ্যানঃ

২৩-১০-২০১০ সাল থেকে ২০১০-২০১১ শিক্ষা সনে কম্পিউটার এবং ইলেকট্রনিক্স টেকনোলজিতে যথাক্রমে ১ম শিফট ও ২য় শিফটে (৯১+৯৫) জন মোট ১৮৬ জন শিক্ষার্থী ভর্তির মাধ্যমে শিক্ষা কার্যক্রমের যাত্রা আরম্ভ হয় এবং পরে আরো ২টি টেকনোলজি চালু করা হয়৷ আরএসি টেকনোলজিতে ১ম ও ২য় শিফটে(৪৮+৪৮)= ৯৬ জন শিক্ষার্থী ভর্তি হয়৷

হোস্টেল সুবিধাঃ
শুধুমাত্র ৯৬ জন ছাত্র ধারণক্ষম ৪ তলা বিশিষ্ট একটিমাত্র বিল্ডিং আছে । জুলাই ২০১২ থেকে ৯৬ জন ছাত্রকে সীট বরাদ্দের মাধ্যমে হোস্টেল কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

অবস্থানঃ
এটি মৌলভীবাজার শহর থেকে শমসেরনগর রোডের, মাথারকাপন এলাকায় অবস্থিত।

ক্যাম্পাসঃ
মূল ক্যাম্পাসে পাঁচতলা বিশিষ্ট তিনটি ভবন, এদের দুইটি প্রাতিষ্ঠানিক ভবন ও একটি প্রশাসনিক ভবন। এছাড়া ওয়ার্কশপ কক্ষ, অফিস, লাইব্রেরী, ল্যবরেটরী, একটি ৫০০ ধারণ ক্ষমতা সম্পন্ন অডিটোরিয়াম,হার্ডওয়্যার ল্যাব, সফটওয়্যার ল্যাব এবং ফ্রী ওয়াই-ফাই সহ একটি মাল্টিমিডিয়া নেটওয়ার্কিং ল্যাব । এছাড়া প্রতিষ্টানের মূল গেইট সংলগ্ন একটি শহীদ মিনার।

প্রতি বছরই শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর এই প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে।
জানা যায়, আনুমানিক প্রায় ২ বছর আগে উক্ত প্রতিষ্ঠানের পুরো বৈদ্যুতিক ব্যবস্থা নষ্ট হয়,খুব অল্প সময়ের মধ্যে সমাধান করে দেয়(১৩ লক্ষ টাকা ব্যয়ে) , ২০২০ এ ওইইডি এই প্রতিষ্ঠানে সীমান প্রাচীর উচুসহ  নতুন ড্রেন নির্মাণ,কলাপ্সিবল গেইট স্থাপনসহ অনেক উন্নয়নমূলক কাজ বাস্তবায়ন করে। এছাড়াও  শহীদ মিনারের কাজ চলমান রয়েছে। 

মৌলভীবাজার পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট এ বর্তমানে এখানে চারটি বিভাগ চালু আছে।
১. কম্পিউটার ।
২.ইলেকট্রনিক্স ।
৩.রেফ্রিজারেশন এন্ড এয়ার কন্ডিশনিং।
৪.ফুড। 


জাফলং নিউজ/ডেস্ক/শুভ